নারী সুরক্ষার জন্য বহরমপুরে ‘এমার্জেন্সি রেসপন্স সিস্টেমে’র দাবি করলেন অধীর চৌধুরী

119

মহানগর ডেস্ক: রাজ্যে একের পর এক খুন ও ধর্ষণের ঘটনায় অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে সাধারণ মানুষ। সম্প্রতি বহরমপুরের সুতপা চৌধুরী খুনের ঘটনায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়েছে গোটা জেলায়। এবার নারী সুরক্ষার বিষয় নিয়ে পথে নেমে আন্দোলন করবে কংগ্রেস। শুক্রবার সাংবাদিক বৈঠক করে অধীর চৌধুরী জানিয়েছেন, আগামিকাল অর্থাত্‍ শনিবার থেকেই এই ইস্যুতে আন্দোলনে নামবে কংগ্রেস।

তিনি আরও জানিয়েছেন, আমরা দাবি জানাচ্ছি, বহরমপুর শহরে পুলিশ এবং প্রশাসনকে এমার্জেন্সি রেসপন্স সিস্টেম ব্যবস্থা চালু করতে হবে। যাতে পুলিশ যে কোনও ঘটনার সময় ‘ওয়ান কল অ্যাওয়ে’ থাকে। এই ব্যবস্থা যদি ইতিমধ্যেই পুলিশ প্রশাসন বহরমপুর শহরে চালু করত তাহলে জেলা পুলিশ সুপারের বাড়ি থেকে ২০০ গজ দূরত্বে সুতপাকে অকালে খুন হতে হত না।

পাশাপাশি তিনি আরও জানিয়েছেন, দিল্লিতে নির্ভয়া কাণ্ডের পর কমিশন যে রিপোর্ট দিয়েছিল তাতে মহিলাদের নিরাপত্তার জন্য একাধিক নিরাপত্তা ব্যবস্থা গোটা দেশে চালু করতে বলা হয়েছিল। সেই প্রস্তাবের পর পশ্চিমবঙ্গ বা মুর্শিদাবাদে কোনও এমার্জেন্সি নম্বর আজ পর্যন্ত চালু হয়েছে বলে আমার জানা নেই। এই নম্বর চালু থাকলে বহরমপুরে, বগটুইতে বা অন্যান্য জায়গা যে হত্যা হয়েছে তা হয়তো হত না।

কংগ্রেস নেতা দাবি করেছেন, গোটা বহরমপুর শহরকে সিসিটিভি ক্যামেরার আওতায় মুড়ে ফেলতে হবে, যাতে নাগরিকরা নিরাপদ বোধ করেন। এর জন্য দরকার হলে নাগরিকদের কাছ থেকে পুলিশ চাঁদা তুলে সিসিটিভি ক্যামেরা বসাক।