দলের নির্দেশে নাকি নিজের ইচ্ছায়! বঙ্গ বিজেপির কোন নেতা কি বলছে বিপ্লব দেবের ইস্তফা নিয়ে? জেনে নিন

30

মহানগর ডেস্ক: শনিবার দুপুরে হঠাৎই নিজের পদ থেকে ইস্তফা দিলেন ত্রিপুরার মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব। বর্তমানে ত্রিপুরায় যেন ঝড় উঠেছে। আজ দুপুরে বিপ্লব দেবের ইস্তফার পরই বিকেলের মধ্যে নতুন মুখ্যমন্ত্রীর নাম ঘোষণা হয়। নতুনভাবে দায়িত্ব হাতে নিলেন মানিক সাহা। এবার বিপ্লব দেবের এই ইস্তফা নিয়ে কটাক্ষ করলেন তৃণমূল নেত্রী চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য। সংবাদমাধ্যমের মুখোমুখি হয়ে তিনি জানিয়েছেন, ‘একবার ইমেজ নষ্ট হলে, তা তৈরি হয় না। বিপ্লব দেব হয়তো দলের চাপে পড়েই ইস্তফা দিয়েছেন। কিন্তু তা সঠিকভাবে আমার জানা নেই’।

ত্রিপুরায় বিজেপি এগিয়ে আছে এই প্রসঙ্গে চন্দ্রিমা ভট্টাচার্য জানিয়েছেন, ‘হতে পারে ত্রিপুরায় বিজেপি এগিয়ে রয়েছে। কারণ যারা সমাজ বিরোধী কাজ করে তারাই বেশি গুরুত্ব পায়’। এবার এই বিষয়ে বঙ্গ বিজেপি নেতা তথা বিজেপির সর্বভারতীয় সহ সভাপতি দিলীপ ঘোষ জানিয়েছেন, ‘পার্টি ওনাকে বলেছিল ইস্তফা দেওয়ার জন্য, তাই উনি নির্দেশ মেনে ইস্তফা দিয়েছেন। কিন্তু কেন তার একমাত্র কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব বলতে পারবে। কেন বা কি কারনে বিপ্লব দেবকে সময় শেষ হওয়ার আগেই ইস্তফা দিতে হল সেই বিষয়’।

ত্রিপুরার প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী অর্থাৎ বিপ্লব দেবের ইস্তফা নিয়ে পশ্চিমবঙ্গ বিজেপির রাজ্য সভাপতি সুকান্ত মজুমদার জানিয়েছেন, ‘ওনাকে মূলত সংগঠনের দায়িত্ব দেওয়া হবে। সংগঠন সবথেকে বেশি গুরুত্বপূর্ণ। সংগঠন শক্তিশালী থাকলে আগামী দিনের দল ক্ষমতায় চলে আসবে’। একইসঙ্গে সুকান্ত মজুমদার জানিয়েছেন, ‘বিপ্লব দেব নাকি নিজেই জানিয়েছিলেন যে তাঁকে সংগঠনের দায়িত্ব দেওয়া হোক। বাকিটা দলের সিদ্ধান্ত দল যেভাবে সিদ্ধান্ত নেবে। দলের সিদ্ধান্তেই আমাদেরকেও চলতে হবে।