‘SP ও BSP – এর সরকারের মত বিজেপি জাতিভেদ করে না, বরং সমগ্র সমাজের স্বার্থে কাজ করে’, মথুরায় মন্তব্য অমিত শাহের

9

মহানগর ডেস্ক: শিয়রে উত্তরপ্রদেশের বিধানসভা নির্বাচন। আর এই হাই ভোল্টেজ নির্বাচনের ফলাফলের দিকে তাকিয়ে রয়েছে গোটা দেশ। আসন্ন বিধানসভা নির্বাচনকে পাথেয় করেই নিজেদের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে মরিয়া রাজ্যের রাজনৈতিক দলগুলো। বিশেষ করে রাজ্যের শাসক দল অর্থাৎ বিজেপিকে উৎখাত করতে উঠেপড়ে লেগেছে সমাজবাদী পার্টি। আর ভোটের দিন যত এগিয়ে আসছে ততই যেন শাসক – বিরোধীদের মধ্যে কটাক্ষ পাল্টা কটাক্ষের ঝাঁঝ আরও বৃদ্ধি পাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার উত্তরপ্রদেশের মথুরায় ‘ এফেকটিভ ভোটার কমিউনিকেশন’ প্রোগ্রামে ভাষণ দেন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ। আর অনুষ্ঠানের মঞ্চ থেকেই রাজ্যের প্রাক্তন শাসক দলগুলোকে সরাসরি নিশানা করে তোপ দেগে মন্তব্য করেন গেরুয়া শিবিরের নেতা। এদিন তিনি বলেন,’ বহুজন সমাজ পার্টি এবং সমাজবাদী পার্টির মত বিজেপি কোনও একটি নির্দিষ্ট সম্প্রদায়ের মানুষের জন্য কাজ করে না, বরং সমগ্র সমাজের স্বার্থে কাজ করে। আমাদের সরকারের আগে উত্তরপ্রদেশের মানুষ অনেকদিন ধরেই বিএসপি ও এসপির সরকার দেখেছে। তারা শুধুই জাতিভেদ করে গিয়েছে অতগুলো বছর ধরে। এই রাজ্যের সম্পূর্ণ উন্নয়নের মানচিত্র কেউ আঁকেনি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি দায়িত্ব নেওয়ার পর এবং যোগী আদিত্যনাথ মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব নেওয়ার পর ‘সবকা সাথ সবকা বিকাশ ‘ মন্ত্র বাস্তবায়িত হল।’

 

এরপর তাঁর সংযোজন,’ আজ অখিলেশ যাদব বলছেন তাঁরা বিনামূল্যে ৩০০ ইউনিট বিদ্যুত দেবেন কিন্তু তাঁর নেতৃত্বাধীন সরকারের সময় তিনি বিদ্যুৎ সরবরাহটুকুও করতে পারেননি। আমরা উত্তরপ্রদেশের অর্থনীতিকে ২ নম্বরে এনেছি এবং আগামী ৫ বছরে এটিকে ১ নম্বরে আনব।’

 

তিনি এদিন আরও বলেন,’ গত ৭.৫ বছর ধরে, আমাদের সরকার আছে কিন্তু কেউ আমাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতির অভিযোগ আনতে পারে না৷ অখিলেশ যাদবের লোকদের বাড়ি থেকে নোট বেরিয়ে আসছে৷ তাই আইনশৃঙ্খলা নিয়ে তাঁর কথা বলা উচিত নয় কারণ তাঁর সরকারের সময় এই রাজ্যে গুন্ডা রাজ ছিল।’