অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বিরুদ্ধে কুমার বিশ্বাসের অভিযোগের তদন্ত নিয়ে মোদীজিকে অনুরোধ চান্নির

40

মহানগর ডেস্ক: অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বিরুদ্ধে এবার বিস্ফোরক অভিযোগ পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী চরণজিৎ সিং চান্নি। বিধানসভা নির্বাচনে ঠিক আগে আম আদমি পার্টির প্রাক্তন সহকর্মী কুমার বিশ্বাস-এর মন্তব্য কে ঘিরে নতুন করে আক্রমণ শুরু করেছেন চান্নি বৃহস্পতিবার দিন রাতে নির্বাচন কমিশনের চিঠির একটি কপি শেয়ার করে তোপ দেগেছেন আম আদমি পার্টির বিরুদ্ধে। পাশাপাশি বিচ্ছিন্নতাবাদীদের সঙ্গে কেজরিওয়ালের কথিত সংযোগের বিষয় তদন্তের বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীকে অনুরোধ করেছেন।

চরণজিৎ সিং চান্নি জানিয়েছেন রাজ্যে বিচ্ছিন্নতাবাদের বিরুদ্ধে লড়াই করার সময় পাঞ্জাবের লোকেরা ভারী মূল্য দিয়েছে। এই বিষয়কে কেন্দ্র করেই তিনি টুইটারে লিখেছেন, “পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী হিসাবে আমি মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীজিকে @DrKumarVishwasJi-র ভিডিওর বিষয়ে একটি নিরপেক্ষ তদন্তের নির্দেশ দেওয়ার জন্য অনুরোধ করছি। রাজনীতি বাদ দিয়ে পঞ্জাবের জনগণ ভারী মূল্য দিয়েছে, বিচ্ছিন্নতাবাদের বিরুদ্ধে লড়াই করার সময়। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীকে প্রতিটি পাঞ্জাবির উদ্বেগের সমাধান করতে হবে”।

গতকাল পঞ্জাবের অ্যাডিশনাল চিফ ইলেকশনাল অফিসার একটি বিতর্কিত চিঠি জারি করেন। যেখানে রাজনৈতিক দল, মিডিয়া হাউস এবং তাদের প্রতিনিধিদের উদ্দেশ্যে লেখা হয়েছে যে তারা ‘কেজরিওয়ালকে বদনাম করার লক্ষ্যে’ বিদ্বেষপূর্ণ ভাবে যে পরিস্থিতি তৈরি করছে আর বিশ্বাসের সাক্ষাৎকারকে যেভাবে তুলে ধরছে তা যেন না করা হয়। এরপরই চান্নিজি একটি চিঠি শেয়ার করেছেন, যেখানে প্রধান নির্বাচনী অফিস তার বিতর্কিত আদেশ প্রত্যাহার করেছে।

এই সপ্তাহের শুরুতে বিধানসভা নির্বাচনের আগে অরবিন্দ কেজরিওয়ালের বিরুদ্ধে গুরুতর অভিযোগ তুলেছিলেন কুমার বিশ্বাস। তাঁর দাবি, ‘কেজরিওয়াল ২০১৭ সালের বিধানসভা নির্বাচনে পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী হওয়ার জন্য বিচ্ছিন্নতাবাদী উপাদানগুলির সমর্থন নিতে প্রস্তুত ছিলেন’। পাশাপাশি তাঁর মন্তব্য, অরবিন্দ কেজরিওয়াল তাঁকে বলেছিলেন, “একদিন তিনি পঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী হবেন অথবা একটি স্বাধীন দেশের প্রথম প্রধানমন্ত্রী হবেন”।