‘শুভেন্দু অধিকারী বিজেপির জন্য চরম অপয়া’, রাজ্যের বিরোধী দলনেতাকে কড়া ভাষায় আক্রমণ দেবাংশুর

8
'শুভেন্দু অধিকারী বিজেপির জন্য চরম অপয়া', রাজ্যের বিরোধী দলনেতাকে কড়া ভাষায় আক্রমণ দেবাংশুর

মহানগর ডেস্ক: রাজ্যের দ্বিতীয় দফার উপনির্বাচনেও বাজিমাত তৃণমূল কংগ্রেসের। সবুজ ঝড়ের সামনে কার্যত খড়কুটোর মত উড়ে গিয়েছে বিজেপি। চারটি কেন্দ্রের প্রত্যেকটিতেই বিরাট ব্যবধানে জয়ী হয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থীরা। আর এই চারে চার ফলাফলের পর থেকেই ঘাসফুল শিবিরের নেতা নেত্রীরা একে একে টুইট কিংবা ভিডিও পোস্ট করে প্রার্থীদের শুভেচ্ছা জানাচ্ছেন এবং পাশাপাশি গেরুয়া শিবিরকে নিশানা করতেও ছাড়ছেন না।

যুব তৃণমূল কংগ্রেসের নেতা দেবাংশু ভট্টাচার্য্য ফেসবুকে একটি ভিডিও পোস্ট করে শুভেন্দু অধিকারীকে তীব্র কটাক্ষের সুরে বিদ্ধ করেছেন। তিনি বলেছেন,’ শুভেন্দু অধিকারী বিজেপির জন্য চরম অপয়া।’ পাশাপাশি তিনি আরও বলেন, ‘শুভেন্দু অধিকারী বিজেপিতে যাওয়ার পর থেকেই গেরুয়া শিবিরের সর্বনাশ শুরু হয়ে গিয়েছে। শুভেন্দু অধিকারীর উগ্রতা,ব্যক্তিগত আক্রমণ বাংলার মানুষ ভাল চোখে দেখেনি। এমনকি যে উত্তরবঙ্গ বিজেপির শক্তিশালী ঘাঁটি, সেখানকার মানুষও পদ্মফুল শিবিরকে প্রত্যাখ্যান করেছেন। বাংলাদেশ ইস্যু নিয়ে হিন্দুদের মৃতদেহের ওপর দাঁড়িয়ে রাজনীতি করতে আসা বিজেপিকে বাংলার মানুষ তার মোক্ষম জবাব দিয়েছে। এর থেকেই বোঝা যাচ্ছে পশ্চিমবঙ্গে বিজেপির গল্প শেষ।’

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, আজ শান্তিপুর কেন্দ্রে তৃণমূল কংগ্রেসের প্রার্থী ব্রজকিশোর গোস্বামী ৬৩ হাজার ৮৯২ ভোটে জয়ী হয়েছেন। কোচবিহারের দিনহাটা কেন্দ্রে শাসক দলের প্রার্থী উদয়ন গুহ জয়লাভ করেছেন ১ লক্ষ ৬৩ হাজার ৫ টি ভোটে। গোসাবা কেন্দ্রের ঘাসফুল শিবিরের প্রার্থী সুব্রত মন্ডল জয়লাভ করেছেন ১ লক্ষ ৪৩ হাজার ৫১ টি ভোটে এবং খড়দহ কেন্দ্রের তৃণমূল কংগ্রেস প্রার্থী শোভনদেব চট্টোপাধ্যায় জয়ী হয়েছেন ৯৩ হাজার ৮৩২ ভোটে।