বন্ধুত্বের ছলনা করে এক যুবক নাবালিকাকে নিয়ে পাড়ি দিল বাংলাদেশে, দীর্ঘ ন’মাস পর বাড়ি ফিরল দশম শ্রেণির ছাত্রী

28

নিজস্ব প্রতিনিধি, নদিয়া: খেলার ছলে বন্ধুত্বের টানে বন্ধুর হাত ধরে পাড়ি বিদেশে। সেখান থেকে ন’মাস বাদে দু’দেশের প্রশাসনের মধ্যস্থতায় দেশে ফিরল দশম শ্রেণীর নাবালিকা ছাত্রী। ঘটনাটি ঘটেছে নদীয়া কৃষ্ণনগর মানিকপাড়া এলাকায়।

জানা যাচ্ছে, ২০২১ সালের ২৬ জুন ১৬ বছর বয়সী প্রিতি পন্ডিত নামক কৃষ্ণনগর মৃণালিনী বালিকা বিদ্যালয়ের দশম শ্রেণীর ছাত্রী নিখোঁজ হয়ে গিয়েছিল। সেই সময় তাঁর পরিবারের তরফ থেকে স্থানীয় কোতোয়ালি থানায় একটি মিসিং ডায়েরি করা হয়েছিল। এরপর কেটে যায় ন’টি মাস, অবশেষে ভারত সরকারের তত্ত্বাবধানে আজ বৃহস্পতিবার ঘরে ফিরতে চলেছে নাবালিকা ওই ছাত্রী।

এলাকার বাসিন্দারা জানায়, কৃষ্ণনগরে নাবালিকার পাড়াতেই একটি কারখানায় কাজ করতে আসে মিলন শেখ নামক বাংলাদেশ রংপুর এলাকা থেকে ২২ বছরের এক যুবক। অল্প বয়স হওয়ার কারণে, বাংলাদেশি ওই যুবকের সঙ্গেই ওই দেশে পা দিয়েছিল ওই নাবালিকা। ওই দেশে যাওয়ার দুই-একদিন পরেই বাড়ি ফিরতে চাইলে বাংলাদেশি ওই যুবক আর কোন রকম সহযোগীতা করে না। সেই সময় একাই ভারতে ফিরতে উদ্যত হলে ধরা পড়ে যায় বাংলাদেশ বর্ডারে। বাংলাদেশ প্রশাসন ওই নাবালিকাকে উদ্ধার করে রংপুরের একটি সরকারি হোমে রাখার ব্যবস্থা করে।

ভারত সরকারের সঙ্গে এই বিষয় নিয়ে যোগাযোগ করার পর বিভিন্ন সরকারি আইনি জটিলতা কাটিয়ে দীর্ঘ নয় মাস বাদে গতকাল অর্থাৎ বুধবার নদিয়ার গেদে দর্শনা সীমান্তে বাংলাদেশের উচ্চপদস্থ প্রশাসন এবং ভারতীয় উচ্চপদস্থ প্রশাসনের উপস্থিতি এবং আলোচনার ভিত্তিতে তাঁকে ফিরিয়ে দেওয়া হল ভারত সরকারের হাতে। দীর্ঘদিন পরে নিজের মেয়েকে বাড়ি ফিরে পেয়ে অত্যন্ত খুশি হয়ে উঠেছে তাঁর পরিবারের সদস্যরা। বলা যায় এলাকাবাসীরা উৎসবে মেতেছেন।