‘আমি মোদিকে মারতে পারি এবং তাঁকে নিয়ে অশ্রাব্য ভাষায় মন্তব্যও করতে পারি’, মহারাষ্ট্রের কংগ্রেস নেতার বক্তব্যে বিতর্কের ঝড়

7

মহানগর ডেস্ক: সম্প্রতি একটি সর্বভারতীয় সংবাদ মাধ্যমকে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে মহারাষ্ট্র কংগ্রেস সভাপতি নানা পাটোলে কুরুচিকর মন্তব্য করে বসেন। আর সেই ভিডিও ক্লিপ ঝড়ের গতিতে ভাইরাল হয়ে যায় সোশ্যাল মিডিয়ায়। এরপর রাতারাতি বিতর্কের কেন্দ্রবিন্দু হয়ে ওঠেন হাত শিবিরের নেতা।

তিনি সেই সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে বলেছিলেন,’ আমি মোদিকে মারতে অথবা আঘাত করতে পারি এবং গালিগালাজও করতে পারি।’ পরে অবশ্য তিনি এই বিষয়ে নিজের অবস্থান স্পষ্ট করে বলেছেন যে তিনি এই মন্তব্যগুলো মারাঠি ভাষায় সেখানকার এক স্থানীয় দুষ্কৃতী সম্বন্ধে করেছিলেন আর সেই দুষ্কৃতীর পদবিও মোদি।

অন্যদিকে বিজেপি জাতীয় মুখপাত্র শেহজাদ পুনাওয়ালা নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে নানা পাটোলের সেই ভিডিও ক্লিপ টুইট করে তার ক্যাপশনে লিখেছেন,’ এখন সবাই বুঝতে পারছেন কেন প্রধানমন্ত্রীর নিরাপত্তা লঙ্ঘনের বিষয়টি একটি ষড়যন্ত্র ছিল?’ প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, তিনি পঞ্জাবের ফিরোজপুরে প্রধানমন্ত্রীর সাম্প্রতিক ভ্রমণের কথা উল্লেখ করেছিলেন যেখানে কিছু বিক্ষোভকারীদের দ্বারা রাস্তা অবরুদ্ধ করার কারণে নরেন্দ্র মোদি ১৫ – ২০ মিনিটের জন্য একটি ফ্লাইওভারের উপরে আটকে ছিলেন। স্বরাষ্ট্র মন্ত্রক এটিকে তাঁর নিরাপত্তায় একটি ‘বড় ত্রুটি’ বলে অভিহিত করেছিল।

 

আরেকদিকে কংগ্রেসের নেতা অতুল লোন্ডে পাতিল নিজের টুইটার অ্যাকাউন্টে একটি টুইট করে সাফাই দিয়েছেন ,’ মহারাষ্ট্র কংগ্রেসের সভাপতি নানা পাটোলেকে রাজ্যের নির্বাচনী এলাকার মানুষরা স্থানীয় গুন্ডা সম্পর্কে অভিযোগ করছিলেন যিনি মোদি নামে পরিচিত। পাটোলে বাবু মাননীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীজিকে নিয়ে সেই সমস্ত মন্তব্য করেননি। ‘