India vs South Africa: পিছিয়ে গেল বিরাটদের দক্ষিণ আফ্রিকা সফর, কাটছাঁট সূচিতেও

58
শনিবার কলকাতায় বোর্ডের বার্ষিক সাধারণ সভায় সভাপতি সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়, সচিব জয় শাহ সহ অন্যান্য আধিকারিকরা।

মহানগর ডেস্ক: প্রত্যাশামতোই ওমিক্রনের প্রভাব পড়ল ভারতের প্রোটিয়া সফরে। পিছিয়ে গেল সিরিজ। বদল হল সূচিতেও। তবে এর আভাস আগেই মিলেছিল। শনিবার শুধু তাতে সিলমোহর ফেলল বিসিসিআই।

এদিন দক্ষিণ আফ্রিকা সফর কাটছাঁট করার কথা ঘোষণা করলেন বিসিসিআই সচিব জয় শাহ। শহর কলকাতায় অনুষ্ঠিত বোর্ডের বার্ষিক সাধারণ সভার পর এই কথা জানালেন সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের ‍‘ডেপুটি’। প্রোটিয়াদের বিরুদ্ধে তিনটি করে টেস্ট ও ওডিআই এবং চারটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলার কথা বিরাট কোহলিদের। ৮ ডিসেম্বর মুম্বই থেকে দক্ষিণ আফ্রিকায় উড়ে যাওয়ার কথা ছিল টিম ইন্ডিয়ার। ১৭ ডিসেম্বর ছিল প্রথম ম্যাচ। কিন্তু ওমিক্রন আতঙ্কের ফলে শুধুমাত্র টেস্ট ও ওয়ানডে সিরিজের জন্য দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে যাবে ভারতীয় দল। টি-টোয়েন্টি সিরিজ পরে আয়োজিত হবে।

এবার নতুন সূচি অনুযায়ী, ১৭ ডিসেম্বরের পরিবর্তে ২৬ ডিসেম্বর অর্থাৎ বক্সিং ডে থেকেই শুরু হবে মেন ইন ব্লুর প্রোটিয়া সফর। স্বাভাবিক ভাবেই বিরাট অ্যান্ড কোং দক্ষিণ আফ্রিকার উদ্দেশে রওনাও দেবে বেশ কিছুদিন পর। প্রসঙ্গত, ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকার মধ্যে যে এবার বক্সিং ডে টেস্ট খেলা হবে, তা আগেই নিশ্চিত ছিল। তবে পূর্ব নির্ধারিত সূচিতে দ্বিতীয় টেস্টটি হত ঐতিহ্যবাহী বক্সিং ডে টেস্ট। কিন্তু নয়া সূচি অনুযায়ী এবার বক্সিং ডে টেস্ট দিয়েই শুরু হবে ভারত-দক্ষিণ আফ্রিকা সিরিজ।

দক্ষিণ আফ্রিকা সফরের জন্য ৯ ডিসেম্বর রওনা হওয়ার কথা ছিল রাহুল দ্রাবিড়ের শিষ্যদের। শোনা গিয়েছে, আপাতত তা সপ্তাহ খানেক পিছিয়ে গিয়েছে। তবে চূড়ান্ত দিনক্ষণ এখন ঠিক হয়নি। সম্ভবত আরও কিছুদিন ওমিক্রন সংক্রান্ত পরিস্থিতি খতিয়ে দেখে এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। দক্ষিণ আফ্রিকা বোর্ডের তরফে জানানো হয়েছে, আগামী ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে ম্যাচের ভেন্যু চূড়ান্ত করা হবে। সফর বাতিল না করার জন্য বিসিসিআইকে ধন্যবাদও জানিয়েছে দক্ষিণ আফ্রিকা ক্রিকেট বোর্ড।

এদিকে, সূত্রের খবর ভারতীয় টেস্ট দলেও গুরুত্ব বাড়তে চলেছে রোহিত শর্মার। অর্থাৎ সম্ভবত হিটম্যানকেই প্রোটিয়া সফরে পাঠানো হবে বিরাটের ডেপুটি হিসাবে। নিয়মিত সহ-অধিনায়ক অজিঙ্কা রাহানে খারাপ ফর্মের কারণে দল থেকে বাদ পড়তে পারেন বলেই জানা গিয়েছে। নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে চলতি দ্বিতীয় টেস্টেও প্রথম একাদশে বাইরে চলে যেতে হয়েছে জিঙ্কসকে। তাঁর পরিবর্তে বিরাট কোহলি বিশ্রাম কাটিয়ে দলে ফিরেছেন। অন্যদিকে শ্রেয়স আয়ার কিউইদের বিরুদ্ধে দুরন্ত পারফর্ম করায় প্রোটিয়া সফরে তিনি কার্যত নিশ্চিত।