Home National Bank Safe Locker: ব্যাঙ্কের লকারে রাখা সোনা,টাকা কতটা সুরক্ষিত? কী বলছে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক

Bank Safe Locker: ব্যাঙ্কের লকারে রাখা সোনা,টাকা কতটা সুরক্ষিত? কী বলছে রিজার্ভ ব্যাঙ্ক

by Mahanagar Desk
8 views

মহানগর ডেস্ক: বাড়িতে না রেখে সোনা,রূপো, নগদ টাকা সুরক্ষিত রাখতে ভারতের লক্ষ লক্ষ মানুষ সেগুলো ব্যাঙ্কের লকারেই রেখে থাকেন, যা তা নিরাপদে থাকে (Bank Safe Locker)। ব্যাঙ্কের ভল্টগুলি তৈরি করা হয়ে উচ্চ মাত্রায় নিরাপদ ধাতু দিয়ে যাতে মূল্যবান জিনিসগুলি উপযুক্ত নিরাপত্তায় রেখে দেওয়া সম্ভব হয়। গ্রাহকেরাও শান্তিতে ঘুমোন সোনাদানা,টাকা পয়সা নিরাপদে আছে বলে।

তবে চুরি, আগুন, বন্যা বা প্রাকৃতিক বিপর্যয়ে মানুষের মূল্যবান জিনিসগুলি ক্ষতিগ্রস্ত হয়ে থাকে। এসব কথা প্রতিক্রিয়া হিসেবে এদেশের ব্যাঙ্কগুলির নির্দেশিকা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। যদি কোনও গ্রাহকের মূল্যবান জিনিসগুলি ব্যাঙ্ক লকারে রাখার পর বন্যা, ভূমিকম্প, চুরি, দাঙ্গা, সন্ত্রাস হামলা বা গ্রাহকের অবহেলায় নষ্ট বা ক্ষতিগ্রস্ত হয়, সবাই আশা করেন এই ক্ষতি ব্যাঙ্কগুলিই পূরণ করবে। তারাই দায়িত্ব নেবে। কিন্তু ঘটনা তা নয়। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক অব ইন্ডিয়া জানাচ্ছে লকারে রাখা মূল্যবান সোনারূপো,টাকা পয়সার ব্যাপারে ব্যাঙ্ক কোনওভাবেই দায়ী থাকবে না। তবে আগুন, চুরি,ডাকাতি, ব্যাঙ্ক ভবনে ধস, বা ব্যাঙ্কের কোনও কর্মীর প্রতারণামূলক কাজকর্মে ব্যাঙ্কের দায়বদ্ধতা কেবল লকারের সারাবছরের ভাড়া একশো গুণের সমান ক্ষতিপূরণ হবে। ক্ষতিপূরণের অঙ্কও কম পাবেন গ্রাহকেরা।

উদাহরণ হিসেবে বলা যেতে পারে, যদি লকারের ভাড়া বছরে এক হাজার টাকা হয়,তাহলে গ্রাহক ক্ষতিপূরণ হিসেবে এক লক্ষ টাকা পাবেন। তা তিনি যত সোনাগয়না,রূপো, যত টাকাই রাখুন না কেন, ওই অঙ্কের টাকাই পাবেন। যেক্ষেত্রে ব্যাঙ্ক প্রয়োজনীয় সাবধানতা অবলম্বনে বাধ্য, সেহেতু ভূমিকম্প,বন্যার মতো প্রাকৃতিক বিপর্যয়ে ক্ষতি বা লোকসানের ব্যাপারে ব্যাঙ্কের দায় নেই। অন্যদিকে আগুন,চুরি,ডাকাতি, ব্যাঙ্ক ধসে পড়া প্রভৃতি কারণে ক্ষতি হলে ব্যাঙ্কের অবহেলার কারণে কোনও দায় নেবে না।

ক্ষতিপূরণ হিসেবে পাওয়া যাবে বার্ষিক লকার ভাড়ার একশো গুণ পরিমাণ টাকা। কারণ হিসেবে ব্যাঙ্কগুলি জানে না লকারে কী রাখা হচ্ছে বা যা রাখা হচ্ছে, তার আর্থিক পরিমাণ কত। গ্রাহকেরাও লকারে কি কি রাখা হচ্ছে, তা ব্যাঙ্ককে জানাতে বাধ্য নন। এরফলে ক্ষতিগ্রস্ত জিনিসগুলির দাম জেনে ক্ষতিপূরণ দেওয়াও সম্ভব নয় ব্যাঙ্কগুলির পক্ষে।

You may also like

Mahanagar bengali news

Copyright (C) Mahanagar24X7 2024 All Rights Reserved