জেএনইউ-এর ঘটনা ২৬/১১-মুম্বই সন্ত্রাসের কথা মনে করিয়ে দিচ্ছে, বললেন উদ্ধব

5
bengali news on thakrey

Highlights

  • ২৬/১১-মুম্বই সন্ত্রাসের কথা মনে করিয়ে দিচ্ছে
  • জেএনইউ-এর ঘটনা নিয়ে প্রতিক্রিয়া উদ্ধবের
  • মহারাষ্ট্রে এমন ঘটনা হবে না, জানালেন উদ্ধব

 

মহানগর ওয়েবডেস্ক: জেএনইউ-এর ঘটনা নিয়ে তোলপাড় হয়েছে সারা দেশ৷ সরকার-বিরোধী দুই পক্ষ সমালোচনায় সরব৷ এই ঘটনার সঙ্গে মুম্বইয়ের ২৬/১১ -হামলার তুলনা করলেন মহারাষ্ট্রের মুখ্যমন্ত্রী উদ্ধব ঠাকরে৷ এই হিংসাত্মক হামলার নিন্দা করেন তিনি৷ জেএনইউ এর ঘটনায় সারা দেশ রাস্তায় নেমে এসেছে৷ বাদ নেই মহারাষ্ট্র৷ তিনি সাফ জানান, তাঁর সরকার যুবকদের ওপর কোনও নির্যাতন বরদাস্ত করবে না৷ দিল্লি পুলিশের কাছে তাঁর আবেদন তারা যেন সহমর্মিতার সঙ্গে পদক্ষেপ করে৷ তা না হলে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি হাতের বাইরে চলে যেতে বাধ্য৷

উদ্ধব ঠাকরে বলেন, রবিবার রাতে জেএনইউ-এর হামলার ঘটনা ২৬/১১ মুম্বই সন্ত্রাসের কথা মনে করিয়ে দেয়৷ ছাত্ররা এই দেশে নিজেদের সুরক্ষিত বোধ করছে না৷ আমি জেএনইউ এর মতো কোনও ঘটনা আমার রাজ্যে ঘটতে দেব না৷ তিনি আরও বলেন, যুবকরা ভীত সন্ত্রস্ত এবং ক্ষুব্ধ৷ তাঁরা ভীরু নয়৷ দয়া করে তাঁদের প্ররোচিত করবেন না৷ তাঁর কথায়, আমরা জানতে চাই, মুখোশের আড়ালে কারা ছিল? যারা মুখোশ পরে এসেছিল, তারা ভীতু৷ তাদের সাহস থাকলে মুখ লুকোবে কেন? এমন ভীরুতা বরদাস্ত করার নয়৷

দিল্লির জওহরলাল নেহরু বিশ্ববিদ্যালয় চত্বরে রবিবার সন্ধ্যায় ছড়িয়ে পড়ল হিংসার আগুন। যার ফলে মাথায় আঘাত পেলেন ছাত্র সংসদ জেএনএসইউ-এর সভাপতি ঐশী ঘোষ। সূত্রের খবর, আড়াই ঘণ্টারও বেশি সময় ধরে চলা এই হামলায় আহত হয়েছেন আরও অনেকেই, যদিও সঠিক সংখ্যা এখনও জানা যায়নি। বেশ কিছু আহতকে ভর্তি করা হয়েছে এইমস-এর ট্রমা কেয়ার সেন্টারে।

এক বিবৃতিতে জেএনএসইউ দাবি করে, হামলার নেপথ্যে রয়েছে বিজেপির ছাত্র সংগঠন অখিল ভারতীয় বিদ্যার্থী পরিষদ, এবং পড়ুয়াদের পাশাপাশি হামলার নিশানা ছিলেন বেশ কিছু প্রফেসরও। তাদের বিবৃতিতে জেএনএসইউ জানায়, পুলিশের উপস্থিতিতেই লাঠি, রড, হাতুড়ি নিয়ে ঘুরছে এবিভিপি, সবাই মুখোশ পরে। নির্মমভাবে আক্রান্ত হয়েছেন জেএনইউএসইউ সভাপতি ঐশী ঘোষ, তাঁর মাথা থেকে অঝোরে রক্ত ঝরছে।