নাম না করে রাজীবকে ‘ইঁদুর’ বললেন কল্যাণ, আর কাকে, কী বললেন জানেন?

9

নিজস্ব প্রতিনিধি: ফের রাজীবকে নিশানা করলেন শ্রীরামপুরের সাংসদ! নাম না করে ডোমজুড়ের প্রাক্তন বিধায়ককে ইঁদুর বলে অভিহিত করলেন শ্রীরামপুরের সাংসদ কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। কেবল রাজীব নন, মুকুল সহ আরও যাঁরা বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে যোগ দিয়েছেন, তাঁদের সবাইকেই কটাক্ষ করেন কল্যাণ।

তৃণমূল নেতা তথা প্রাক্তন সাংসদ আকবর আলি খোন্দকারের ৬৫তম জন্ম দিবস উপলক্ষে শেওড়াফুলিতে সভার আয়োজন করেছিল তৃণমূল। ওই সভায় যোগ দিয়েছিলেন তৃণমূল নেতা কল্যাণ। ওই অনুষ্ঠানে ভাষণ দিতে গিয়ে গিয়ে তিনি বলেন, বিধানসভা ভোটের সময় ওদের বলেছিলাম বিড়ালগুলোকে বাঘ ভেবে নিয়ে যাচ্ছেন। দেখবেন, নির্বাচনের পরে ইঁদুর হয়ে যাবে। সত্যি তাই ঘটছে। এখন, এখানে ফিরে এসেছে বলছে, আমায় একটু জায়গা দাও, মায়ের মন্দিরে বসি।

২০১৭ সালে পুজোর আগে আগে তৃণমূল ছেড়ে দেন বর্ষীয়ান নেতা মুকুল রায়। ওই বছরই পুজোর পরে যোগ দেন বিজেপিতে। এরপর তৃণমূল ভাঙানোর খেলায় মাতেন মুকুল। একুশের বিধানসভা নির্বাচনে কৃষ্ণনগর উত্তরে বিজেপি টিকিটে জিতে বিধায়ক হন মুকুল।

একুশের বিধানসভা নির্বাচনে মুখ থুবড়ে পড়ে বিজেপি। তারপরেই ছেলে শুভ্রাংশুকে নিয়ে তৃণমূলে যোগ দেন মুকুল। এর পরেই কালীঘাটের দরজা খুলে যায় দলবদলুদের জন্য। লাইন দেন ডোমজুড়ের প্রাক্তন বিধায়ক রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ও। তখনই রাজীবের প্রবল বিরোধিতা করেন হাতে গোণা যে কয়েকজন, তাঁদের মধ্যে ছিলেন শ্রীরামপুরের কল্যাণও।

দিন কয়েক আগে ডোমজুড়ে ঢুকতে গিয়ে প্রবল বাধার মুখে পড়েন রাজীব। তাঁকে কালো পতাকা দেখানো হয়। যা শুনে রাজীব বলেন, এবার তো কালো পতাকা দেখানো হয়েছে। এরপর অন্য কিছুও হতে পারে!