নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলে হাইকোর্টের দ্বারস্থ শুভেন্দু, রাজ্যের কাছে রিপোর্ট তলব আদালতের

23

মহানগর ডেস্ক: সম্প্রতি কলকাতা হাইকোর্টের বরফে জানানো হয়েছিল কোনও ভাবে শুভেন্দু অধিকারীকে গ্রেফতার করা যাবে না। এমনকি শীর্ষ আদালতও তাই জানিয়েছিল। জেড ক্যাটাগরির নিরাপত্তা থাকা সত্ত্বেও বারংবার তার যাওয়ার পথে বিঘ্ন ঘটছে। কেন হচ্ছে এই ধরনের বাধা সেই নিয়েই প্রশ্ন তুলল এবার কলকাতা হাইকোর্ট। আর সেই প্রশ্নের তরফেই রাজ্য সরকারের কাছে রিপোর্ট তলব করেছে আদালত।

নেতাই, বাঁকুড়া, কাঁথিতে শুভেন্দু অধিকারী সফরসূচিতে বারংবার নিরাপত্তা বিঘ্নিত হয়েছে। এমনই অভিযোগ তুলে সোমবার আদালতের দ্বারস্থ হয়েছিলেন শুভেন্দু অধিকারী। জেড ক্যাটাগরির নিরাপত্তা থাকা সত্বেও বারবার তার সফর সূচি বাধাপ্রাপ্ত হচ্ছে। এই প্রশ্ন তুলে আদালতে আবেদন জানান বিরোধী দলনেতা। একই সঙ্গে তিনি অভিযোগ করেছেন, তাঁর বাড়ির সামনে ক্লোজ সার্টিফিকেট ক্যামেরা বসানো হচ্ছে। আর এরপরই রাজ শেখর মন্থা শুভেন্দু অধিকারীর বক্তব্য নিয়ে রাজ্যের কাছ থেকে রিপোর্ট তলব করেন।

সূত্রের খবর অনুযায়ী জানা গেছে, আগামী ১৮ জানুয়ারির মধ্যেই রিপোর্ট রাজ্যকে জমা দিতে হবে। আগামী ১৯ জানুয়ারি এই মামলার পরবর্তী শুনানি হবে বলে জানা গিয়েছে। প্রসঙ্গত, গত সপ্তাহে শুভেন্দু অধিকারী মেদিনীপুরের নিয়ে যাওয়ার জন্য হাইকোর্টের থেকে অনুমতি চেয়েছিল। রাজ্যের advocate-general আদালতে বলেছিলেন শুভেন্দু অধিকারীর যে কোনও সফরে তিনি যেখানে যাবেন, সেখানে তার নিরাপত্তা নিশ্চিত করার দায়িত্ব রাজ্যের। অথচ শুভেন্দু অধিকারীর ৭ জানুয়ারি নেতাই এ গেলে পুলিশ তাকে বাধা দেয়।

এমনকি বিরোধী দলনেতার কাঁথির বাড়ির সামনে মাঝরাত পর্যন্ত মাইক বাজানো হয়। বাড়ির দরজা-জানালা লক্ষ্য করে সিসিটিভি লাগানো হয়। আদালতের অনুমতি থাকা সত্ত্বেও এবং মৌলিক অধিকার থাকা সত্বেও রাজ্যের বিভিন্ন জায়গাতে যেতে গেলে বাধার মুখে পড়তে হচ্ছে বিরোধী দলনেতাকে।