মোদির পাশে দাঁড়ালেন মমতা, ইউক্রেনের পরিস্থিতি নিয়ে চিঠি লিখলেন তৃণমূল সুপ্রিমো

39

মহানগর ডেস্ক: ইউক্রেনের উপর ঝাঁপিয়ে পড়েছে রাশিয়া। যুদ্ধের ফলে বিধ্বস্ত হয়ে উঠেছে ছোট্ট দেশ ইউক্রেন। যদিও ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট জানিয়েছেন, নিজের শেষ রক্তবিন্দু দিয়ে হলেও তিনি রক্ষা করবেন দেশকে। তবে ওই দেশে ভারতের বহু পড়ুয়ারাই মেডিকেল পড়তে যান। এবার ওখানে যুদ্ধ শুরু হওয়ায় আটকে পড়েছেন পড়ুয়ারা। জানা যাচ্ছে, বহু রাশিয়ান সৈন্যরা অত্যাচার চালাচ্ছে পড়ুয়াদের ওপর। তাঁদের আটক করে রাখছে। এমন অবস্থায় বাংলার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় চিঠি দিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে। রাজনৈতিক বিরোধিতাকে দূরে সরিয়ে ঐক্যতার এবং পাশে থাকার বার্তা দিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো।

এদিন মমতার লেখা চিঠিতে তিনি উল্লেখ করেন, “দেশের মর্যাদা যাতে অক্ষুণ্ণ থাকে, তা আমাদের নিশ্চিত করতে হবে। ইউক্রেনে আটকে থাকা ভারতীয়দের ফেরত আনতে আমরা সবাই পাশে কেন্দ্রীয় সরকারের আছি।”

এখানেই শেষ নয়, বাংলার মুখ্যমন্ত্রী আরও লেখেন, ” যুদ্ধের বিরুদ্ধে আমাদের অবস্থান স্পষ্ট। আন্তর্জাতিক শান্তিরক্ষায় ভারতের প্রতিশ্রুতি সম্পর্কে সবাই জানে। পরিস্থিতি পর্যালোচনা করতে সর্বদল বৈঠক ডাকা যায় কিনা, তা ভেবে দেখতে অনুরোধ মমতার। বিশ্বের সর্ববৃহৎ গণতন্ত্র হিসেবে বিশ্বে শান্তি রক্ষা করতে ভারতের মতো দেশকে এগিয়ে যেতে হবে এবং তার নেতৃত্ব দিতে হবে।”

ইতিমধ্যেই চারজন কেন্দ্রীয় মন্ত্রীকে বিদেশে পাঠানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে মোদি। যুদ্ধ পরিস্থিতিতে এই নিয়ে দুবার বৈঠকে বসলেন মোদি। এখনও দেশে ফিরিয়ে আনা যায়নি প্রায় ১৬ হাজারের কাছাকাছি ভারতীয় পড়ুয়াকে। মাঝেমধ্যেই সোশ্যাল মিডিয়ায় ভাইরাল হচ্ছে যুদ্ধবিধ্বস্ত দেশের উদ্বেগজনক পরিস্থিতির কিছু দৃশ্য। যা দেখে শিউড়ে উঠছে গাঁ।