‘গায়ে গন্ডারের চামড়া রয়েছে তাই টিকে গিয়েছি’, বলিউডের নেপোটিজম প্রসঙ্গে মনোজ

9

মহানগর ওয়েবডেস্ক: প্রকৃত প্রতিভা আছে যাদের সেই সমস্ত অভিনেতাদের পাত্তা দেয় না বলিউড। এরাই যদি বিদেশে জন্মাত তাহলে অনেক বড় তারকা হয়ে যেত, এক সাক্ষাৎকারে নেপোটিজম নিয়ে বক্তব্য রাখতে গিয়ে এমনটাই জানালেন অভিনেতা মনোজ বাজপেয়ী। এরই সঙ্গে তিনি জানিয়েছেন তার গায়ে গন্ডারের চামড়া আছে বলেই বলিউডে আউটসাইডার হয়ে এখনও টিকে রয়েছেন।

বলিউডে সুশান্ত সিং রাজপুতের আত্মহত্যাকে কেন্দ্র করে নেপোটিজম নিয়ে বলিউডের অন্দর রীতিমত উত্তপ্ত। সোশ্যাল মিডিয়াতে চলছে নিন্দা ও সমালোচনার বন্যা। এক সাক্ষাৎকারে মনোজ জানিয়েছেন, ‘শুধু বলিউড নয় গোটা বিশ্বেই প্রকৃত ট্যালেন্টকে কেউ কদর করে না। কোনও প্রতিভাবান মানুষকে দেখলেই আমরা তাকে কোণঠাসা করার চেষ্টা করি। এটা তো সমাজের মূল রীতি হয়ে গিয়েছে।’

সুশান্ত প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে মনোজ আরও জানিয়েছেন, ‘এই মুহূর্তে আমার মনে হয় বলিউডের নিজের স্বভাব বদলানো উচিত, মানুষদের সম্মান করা উচিত নইলে একদিন তারাই আর সম্মান পাবে না। বলিউড প্রকৃত প্রতিভাসম্পন্ন মানুষদের পাত্তা দেয় না, এরাই যদি বিশ্বের অন্য কোথাও জন্মাত তাহলে আজ আসল সম্মানটা পেত। এখানে ট্যালেন্ট না থেকেও অনেক মানুষ কাজ পায় আবার যাদের প্রকৃত প্রতিভা আছে তারা হারিয়ে যায়। বিদেশে জন্মালে এরাই নাম করত একদিন। বলিউডে বড় প্রযোজনা সংস্থার ছবি ছাড়া চলে না। কম বাজেটের কিংবা ছোট প্রযোজনা সংস্থার ছবি হল থেকে নামিয়ে দেওয়া হয়। এটাই তো দিনের পর দিন চলে আসছে।’

ওই সাক্ষাৎকারে তাকে প্রশ্ন করা হয় তাহলে তিনি আউটসাইডার হয়ে কীভাবে টিকে গেলেন? উত্তরে মনোজ জানিয়েছেন, ‘আমার গায়ে গন্ডারের চামড়া আছে তাই টিকে গিয়েছি। আর আমি মানুষটাই অন্য রকম।’