কলকাতা চলচ্চিত্র উৎসবে গিয়ে বারবার জুটেছে অপমান! ঠিক কাকে ইঙ্গিত করছেন মিমি?

58

মহানগর ডেস্ক : এককথায় ‘দায়সারা’ নিমন্ত্রণ করা হয়েছে তাঁকে। সাংসদ হয়েও কেন এমন আচরণ করা হয় তাঁর সঙ্গে। কলকাতা চলচ্চিত্র উৎসবে ‘ঠিক করে’ আমন্ত্রণ টুকু পর্যন্ত জানানো হয়নি অভিনেত্রী সাংসদ মিমি চক্রবর্তীকে। জানান,’ লেটার বক্সে কার্ড এসেছিল এই অবধি। আয়োজকদের পক্ষ থেকে না কোনও ফোন না কোনও এসএমএস! আমি কোথায় যাবো কখন যাবো তাও জানিনা’।

 

শাসকদলের অত্যন্ত ঘনিষ্ঠ অভিনেত্রী মিমি চক্রবর্তী। শুধু সাংসদ হওয়ার খাতিরে নয়, দলীয় বহু অনুষ্ঠানেই নিজে থেকে ছুটে গিয়েছেন তিনি। তাহলে খোদ কলকাতার চলচ্চিত্র উৎসবে এমন নাজেহাল কেন হতে হয়। যে জগতের সঙ্গে তিনি নিজেও যুক্ত। তবে এই ঘটনা যে একেবারেই প্রথম এমনটাও নয়। অভিনেত্রী দাবি অনুযায়ী,২০১৯ সালের চলচ্চিত্র উৎসবের মঞ্চে তার নাম অবধি ঠিক করে বলা হয়নি। কথা অনুযায়ী, তিনি মঞ্চে উপস্থিত। সেখানে সঞ্চালক সকলের নাম উচ্চারণ করলেন। অতিথি হিসেবে সম্ভাষণ করলেন। কিন্তু তাঁর নাম সেখানে নেই। ইন্ডাস্ট্রির সকলের নাম ডাকার পরে শেষে শুধু বলা হয়েছিল ‘মিমিও আছে আমাদের সঙ্গে’। আর তখন চলচ্চিত্র উৎসবেও চেয়ারম্যান ছিলেন রাজ চক্রবর্তী।

 

বারবার চলচ্চিত্র উৎসবে হওয়া তাঁর প্রতি এই আচরণ নিয়ে ক্ষুব্ধ তৃণমূল সাংসদ। মিমির মতে, মুখ্যমন্ত্রী কিছু মানুষের হাতে দায়িত্ব তুলে দিয়েছেন কারণ সবকিছু তাঁর পক্ষে দেখা সম্ভব নয়। তবে ছন্দ কাটছে এক জায়গায়। সেবারেও রাজ ছিলেন চেয়ারম্যানের পদে এবারের ক্ষেত্রেও তাই। তাহলে কি ঠারেঠোরে তাঁকেই নিশানা করলেন মিমি?