দেশে ঢুকে পড়ল করোনার নয়া স্ট্রেন, মুম্বাইতে প্রথম ‘XE’ ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্তের হদিশ মিলল

37

মহানগর ডেস্ক: একদিকে দেশে করোনা সংক্রমণের মাত্রা নিম্নমুখী হচ্ছে ধীরে ধীরে। সাম্প্রতিককালে হাজারের নিচে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা নেমে এসেছে। তারইমধ্যে নতুন করে আতঙ্ক তৈরি করছে করোনার নয়া স্ট্রেন। বুধবার মায়ানগরী মুম্বইতে খোঁজ মিলল করোনার এই নতুন ভ্যারিয়েন্টের। জানিয়েছে বৃহন্মুম্বই নগরপালিকা।

উল্লেখ্য বৃহন্মুম্বই নগরপালিকা এলাকায় ৩৭৬ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছিল মঙ্গলবার। যাদের মধ্যে ২৩০ জন মুম্বইয়ের বাসিন্দা এবং তাদের মধ্যে ২২৮ জনের শরীরে ওমিক্রন ভ্যারিয়েন্টের সন্ধান মিলেছে। বাকিদের মধ্যে একজনের শরীরে কাপ্পা ভ্যারিয়েন্ট এবং অন্যজনের শরীরে ‘এক্স-ই’ ভ্যারিয়েন্টের খোঁজ পাওয়া গিয়েছে। যেটিকে সবচেয়ে ভয়াবহ স্ট্রেন বলে মনে করা হচ্ছে বর্তমানে।

আগেই বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা করোনার এই XE ভ্যারিয়েন্ট নিয়ে সতর্কবার্তা দিয়েছে। গত সপ্তাহে WHO’র পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, করোনার এই নতুন স্ট্রেন পূর্বে যে কোনও স্ট্রেনের তুলনায় দ্রুত ছড়ায়। চলতি বছরের শুরুতে ব্রিটেনে এই নতুন স্ট্রেনের সন্ধান মিলেছিল। সেখানকার স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে ৩ এপ্রিল জানানো হয় যে, করোনার এই ভ্যারিয়েন্টের খোঁজ দেশে প্রথম পাওয়া গিয়েছিল জানুয়ারির ১৯ তারিখ।

এখনও পর্যন্ত সেখানে এই নতুন ভ্যারিয়েন্টে ৬৩৭ জন আক্রান্ত হয়েছে বলে জানানো হয়েছে। এইবারে এই XE ভ্যারিয়েন্ট করোনার দুটি স্ট্রেন মিলে তৈরি হয়েছে। বি.এ-১ এবং বি.এ-২ ওমিক্রন স্ট্রেনের মিউটেশন হয়ে এই নতুন ভ্যারিয়েন্ট তৈরি হয়েছে। WHO থেকে জানানো হয়েছে, করোনার নতুন XE মিউটেশনটি ওমিক্রনের বি.এ-২-এর তুলনায় ১০ শতাংশ বেশি দ্রুত ছড়াচ্ছে।

বর্তমানে মুম্বইয়ের ২৩০ জন করোনা আক্রান্তের মধ্যে ২১ জন ভর্তি হয়েছেন হাসপাতালে। যদিওবা তাদের কারোরই এখনও পর্যন্ত অক্সিজেনের প্রয়োজন পড়ছে না বা আইসিইউতে রাখার প্রয়োজনবোধ হয় নি। কিন্তু মুম্বইতে করোনার এই নতুন স্ট্রেনের খোঁজ পাওয়াতে উদ্বেগ বেড়েছে চিকিৎসক মহলে।