Partha-Arpita: এবার জেলে পার্থ-অর্পিতা,১৪ দিনের হেফাজতের নির্দেশ আদালতের

58

মহানগর ডেস্ক : এবার জেলে থাকতে হবে প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রী পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে।১৪ দিনের জেল হেফাজতের নির্দেশ দিল আদালত।জেল হেফাজত অর্পিতা মুখোপাধ্যায়েরও।আজ অর্থাৎ শুক্রবার এই নির্দেশ দিল ব্যাঙ্কশাল কোর্ট।পার্থকে পাঠানো হল প্রেসিডেন্সি সংশোধনাগারে। অর্পিতা মুখোপাধ্যায় গেলেন আলিপুর মহিলা সংশোধনাগারে। আগামী ১৮ অগস্ট ফের আদালতে তোলা হবে তাঁদের। আলিপুর মহিলা সংশোধনাগারের সুপারকে অর্পিতার জেলে থাকাকালীন সব ধরনের নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করার বিষয়ে নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

আরও পড়ুন : বিজ্ঞাপনে মহিলা প্রদর্শন নিষিদ্ধ, ফরমান জারি ইরান সরকারের

সংশোধনাগারে গিয়ে এই মামলার তদন্ত করবেন ইডি আধিকারিকরা। তদন্তকারী অফিসারের সঙ্গে সংশোধনাগারে আরও দু’জন অফিসার যেতে পারবেন জিজ্ঞাসাবাদের জন্য। সংশোধনাগারে জেরার গোটাপর্বই রেকর্ড করবে ইডি। কারা দফতর সূত্রের খবর, দুই সংশোধনাগারই প্রস্তুত। আদালতের নির্দেশ অনুসারে দু’জনকেই সাধারণ বন্দির মতো সুযোগ সুবিধা দেওয়া হবে। আলাদা কোনও সুবিধা তাঁরা পাবেন না।

সূত্রের খবর, গত কয়েকদিন দফায় দফায় পার্থ-অর্পিতাকে জেরা করেছে ইডি। শুধু টাকা কিংবা সোনাদানা বা বিপুল সম্পত্তির খোঁজই নয়, তদন্তকারীদের হাতে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্যও উঠে এসেছে। সূত্রের খবর, যা হতবাক করছে ইডিকে। এদিন আদালতে তোলার আগে জোকা ইএসআই হাসপাতালে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়েছিল পার্থ চট্টোপাধ্যায় ও অর্পিতা মুখোপাধ্যায়কে। সেখানে পার্থ মুখে কুলুপ এঁটেছিলেন। অর্পিতা শুধু জানিয়েছিলেন, যা বলার ইডিকে বলেছেন।