Home Featured Shiromani Akali Dal: ‘১৪-১৫ আগস্ট বাড়িতে বাড়িতে শিখ ধর্মীয় পতাকা লাগান’, বিস্ফোরক মন্তব্য অকালি সাংসদের

Shiromani Akali Dal: ‘১৪-১৫ আগস্ট বাড়িতে বাড়িতে শিখ ধর্মীয় পতাকা লাগান’, বিস্ফোরক মন্তব্য অকালি সাংসদের

by Anamika Nandi

মহানগর ডেস্ক: সম্প্রতি ভগৎ সিংকে সন্ত্রাসবাদী বলে শিরোনামে এসেছিলেন শিরোমণি অকালি দলের (Shiromani Akali Dal) সভাপতি তথা সাংরুরের নবনির্বাচিত সাংসদ সিমরনজিৎ সিং মান (Simranjit Singh Mann)। এবার কেন্দ্রের ‘হর ঘর তেরঙ্গা’ কর্মসূচিকে পঞ্জাবে বয়কটের ডাক দিয়েছেন তিনি। তাঁর বক্তব্য, “শিখরা ভিন্ন সম্প্রদায়ের মানুষ। আমি অনুরোধ করছি, ১৪ থেকে ১৫ আগস্ট ‘নিশান সাহিব’ উত্তোলন করুন বাড়িতে ও অফিসে। যেটি শিখ ধর্মীয় পতাকা”।

শিরোমণি অকালি দলের সভাপতির কথায় ক্ষোভ প্রকাশ করেছে আপ থেকে বিজেপি। এদিকে কৃষক আন্দোলনের বিতর্কিত মুখ প্রয়াত দীপ সিধুকে স্মরণ করেছেন অকালি সাংসদ‌। তাঁর বক্তব্য, ‘আজকে দীপ সিধু আমাদের মধ্যে নেই। ও মনে করত শিখরা একটি স্বাধীন জাতি। ভিন্ন সম্প্রদায়ের মানুষ’। তাঁর কথায়, ভারতীয় সেনা শত্রুপক্ষ। তিনি বলেন, শত্রু বাহিনীর সঙ্গে লড়াই করতে গিয়ে শহিদ হন জার্নাল সিং ভিন্দ্রানাওয়ালে।

এদিকে শিখ ফর জাস্টিসের মুখপাত্র একটি ভিডিও বার্তা পাঠান পঞ্জাবের জনগণের উদ্দেশে। সেখানে ভারতের জাতীয় পতাকা পুড়িয়ে খলিস্তানি পতাকা উত্তোলনের কথা বলা হয়। তবে অকালি সংসদের কথায় নয়া বিতর্ক তৈরি হয়েছে। পঞ্জাবের শাসক দল তথা আপের মুখপাত্র মালবিন্দর সিং বলেছেন, নিজেদের চরিত্র স্পষ্ট করে দিয়েছে অকালি সাংসদ। তাঁর বক্তব্য, ‘যারা ভারতের সংবিধান অনুযায়ী শপথ নিয়েছেন, সাংসদ হিসেবে ভ্রমণ ভাতাও দাবি করেছেন, তাঁদের চরিত্র প্রকাশ পেয়েছে আজ’।

এদিকে সিমরনজিৎ সিং-এর দলই তাঁর বিরোধিতা করেছেন। তাঁদের দাবি, ‘ভারতের জাতীয় পতাকা সমস্ত দেশবাসীর। পঞ্জাবের মানুষ জাতীয় পতাকার জন্য গর্বিত। এই রাজ্যের অসংখ্য মানুষ দেশের স্বাধীনতার জন্য নিজেদের প্রাণ দিয়েছে। তাঁদের অধিকাংশই শিখ সম্প্রদায়ের সন্তান’। কেন্দ্রের প্রকল্পের বিরোধিতা করে ফের বিতর্কে জড়িয়েছেন সিমরনজিৎ সিং মান।

You may also like