টেনিস থেকে বিদায় নিচ্ছেন সানিয়া মির্জা, জানালেন এই সিদ্ধান্ত নেওয়ার কারণও

13

মহানগর ডেস্ক: এবার টেনিস কোর্ট থেকে বিদায় জানাবেন সানিয়া মির্জা। বছরের শুরুতেই এমন খবর জানিয়ে দিলেন তিনি নিজে। তবে কেন এত অল্প বয়সে তিনি বিদায় নিতে চলেছেন টেনিস জগত থেকে? তা জিজ্ঞেস করা হলে তিনি বলেন, শরীর দিচ্ছে না আর। কোর্টে নামলে পা কাঁপছে। এছাড়াও ক্ষত সারাতে অনেক বেশি সময় লেগে যাচ্ছে। তাই শারীরিক কারণকে দায়ী করে এবার বিদায় নিচ্ছেন গ্র্যান্ড স্লামজয়ী সানিয়া মির্জা।

৩৫ বছর বয়সী এই তারকা এদিন জানান, ‘টেনিস কোর্টে এটাই আমার শেষ মরশুম। প্রত্যেক সপ্তাহ ধরে এগোব। জানি না, মরশুমটা শেষ করতে পারব কিনা। তবে বছরের শেষ পর্যন্ত খেলাটা চালিয়ে যেতে চাই।’ খেলা ছাড়ার কারণ তিনি জানান, ‘আমার শরীরের অবনতি ঘটছে। চোট লাগলে তা ঠিক হতেও অনেক বেশি সময় লাগছে এখন। বয়সের কারণেই এমনটা হচ্ছে। তাছাড়া আমার ৩ বছরের একটা বাচ্চাও রয়েছে। ওকে ছেড়ে সবসময় যেখানে সেখানে চলে যাওয়াটাও বেশ ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে উঠছে।’

২০০৩ সালে পেশাদার টেনিসে পা রাখেন সানিয়া। তারপর থেকে একের পর এক ম্যাচে নিজের কৃতিত্ব তৈরি করতে শুরু করেন তিনি। ২০০৭ সালে প্রথম ভারতীয় মহিলা টেনিস খেলোয়াড় হিসেবে সিঙ্গলসে একশোয় থাকার নজির গড়েছিলেন তিনি। ইতিহাসে ভারতীয় অন্যতম টেনিস তারকা হিসাবে নিজের নাম তৈরি করেন।

অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের প্রথম রাউন্ডে ইউক্রেনের পার্টনার নাদিয়া কিচেনকের সঙ্গে জুটি বেঁধে কোর্টে নেমেছিলেন সানিয়া। ম্যাচের পর তিনি সাংবাদিকদের জানান, এদিনও ম্যাচে আমার পা কাঁপছিল। বলছি না, যে তার জন্যই হেরেছি। কিন্তু তাও বুঝতে পারছেন সমস্যাটা।