Sex Work: ‘যৌনপরিষেবা দেওয়া একটি আইন স্বীকৃত পেশা’, ঐতিহাসিক রায় সুপ্রিম কোর্টের

91
Sex Work: 'যৌনপরিষেবা দেওয়া একটি আইন স্বীকৃত পেশা', ঐতিহাসিক রায় সুপ্রিম কোর্টের

মহানগর ডেস্ক: দীর্ঘদিনের লড়াইয়ের পর অবশেষে আইনি স্বীকৃতি পেলেন যৌনকর্মীরা (Sex Workers)। “যৌন পরিষেবা দেওয়াটা বাকি পাঁচটা সাধারণ পেশার মতোই আইন স্বীকৃত পেশা এবং এই পেশার সঙ্গে যাঁরা যুক্ত তাঁদেরও সম্মানের সঙ্গে জীবনযাপন করার অধিকার আছে”- এদিন এমনটাই জানিয়ে দিল সুপ্রিম কোর্ট ( Supreme Court Of India)।

বৃহস্পতিবার ঐতিহাসিক রায়ে দেশের শীর্ষ আদালত পুলিশকে নির্দেশ দিয়েছে যে, স্বেচ্ছায় যৌনকর্ম করা আইনি অপরাধ না এবং যৌনকর্মীদের কোনওপ্রকার হেনস্থা করা যাবে না। এমনকি তাঁদের বিরুদ্ধে কোনওরকম অপরাধমূলক মামলাও দায়ের করতে পারবে না পুলিশ।”

সুপ্রিমকোর্ট আরও জানায় যে দেশের প্রতিটি নাগরিকের সম্মানজনক জীবনের অধিকার আছে। ঠিক সেইভাবেই প্রাপ্তবয়স্ক যৌনকর্মীদেরও আইনের সুরক্ষা পাওয়ার পূর্ণ অধিকার আছে।

আরও পড়ুনঃশিক্ষাক্ষেত্রে বড় প্রাপ্তি, SSC দুর্নীতির মাঝেই রাজ্যের ঝুলিতে এল ‘স্কচ অ্যাওয়ার্ড’

এদিন বিচারপতি এল নাগেশ্বর রাও, বিচারপতি বিআর গভই, এবং বিচারপতি এএস বোপান্নার ডিভিশন বেঞ্চ যৌনকর্মীদের জন্য বেশকিছু নির্দেশিকা জারি করেছে। জানান হয়েছে যে কোনও যৌনকর্মী যদি হেনস্থার শিকার হন তাহলে তাঁরা সবরকম উপায়ে আইনি সহায়তা পাবেন। এছাড়াও বলা হয়েছে যে পুলিশি অভিযানের ক্ষেত্রে গোপনীয়তা রক্ষার বিষয়টি মাথায় রাখতে হবে, যৌনকর্মীদের সন্তানদের আইনি সুরক্ষার কথা বলা হয়েছে এদিন।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, সুপ্রিম কোর্টের এই ঐতিহাসিক সিদ্ধান্তে দেশের প্রায় ৯ লক্ষ যৌনকর্মী উপকৃত হবেন। সাধারণত যৌনকর্মীদের প্রতি পুলিশের ব্যবহার অধিকাংশ ক্ষেত্রেই অপমানজনক হয়ে থাকে। আর এর জেরেই বহু যৌনকর্মীরা হেনস্থার শিকার হন।