সামান্য নিম্নমুখী করোনা সংক্রমণের মাত্রা, চিন্তা বাড়াচ্ছে দৈনিক মৃতের হার

52

মহানগর ডেস্ক: চলতি বছরের গোড়াতে দেশের কোভিড গ্রাফ চিন্তায় ফেলেছিল সকলকে। তবে বহু দেশের তুলনায় ভারতের পরিস্থিতি তুলনামূলক ভালো। করোনা সংক্রমণে লাগাম টানতে কড়া বিধি-নিষেধ জারি করা হয়েছে। সেই সঙ্গে নজর রাখা হয়েছে টিকাকরণ কর্মসূচিতে। রোজই একটু একটু করে কমছে সংক্রমণের মাত্রা। কিন্তু অপরদিকে আবার সপ্তাহের প্রথমেই ঊর্ধ্বমুখী দৈনিক মৃত্যুর হার।

স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘন্টায় দেশে করোনায় মারা গিয়েছেন ২৭ জন। রবিবার যে সংখ্যা ছিল ১৩-তে। একদিনে দেশে নতুন করে করোনা মহামারীতে আক্রান্ত হয়েছেন ২২০২ জন। রবিবার যা ছিল ২৪০০-র বেশি। কমেছে অ্যাকটিভ কেস। এই নিয়ে অ্যাকটিভ রোগীর সংখ্যা ১৭ হাজার ৩১৭। মোট আক্রান্তের তুলনায় তা ০.০৪ শতাংশ। এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাকে হারিয়ে সুস্থ হয়ে উঠেছেন ২৫৫০ জন। এই নিয়ে দেশে মোট সুস্থ ব্যক্তির সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৪,২৫,৮২,২৪৩-এ।

এদিকে এখনও পর্যন্ত দেশে ১৯১ কোটির বেশি করোনা টিকা দেওয়া হয়েছে। কাজ চলছে বয়স্কদের বুষ্টার ডোজ ও কমবয়সীদের টিকাকরণে। এছাড়া ১৮ ঊর্ধ্বদের দেওয়া হচ্ছে প্রিকশন ডোজ‌। কেন্দ্রের দাবি, করোনাকে নিঃশেষ করতে টিকাকরণই একমাত্র উপায়। সূত্র অনুযায়ী, নতুন করে করোনা সংক্রমণ বেড়েছে উত্তর কোরিয়ায়। মাত্র কয়েক দিনে সেখানে ৮ লক্ষের বেশি পেরিয়ে গিয়েছে সংক্রমণের মাত্রা।

কিন্তু সেখানে মেডিক্যাল সরঞ্জামের সরবরাহ অত্যন্ত ধীরগতিতে হওয়ায়, ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন দেশের শাসক। দেশের সেনাবাহিনীকে দ্রুত ওষুধপত্র সরবরাহ করার কড়া নির্দেশ দিয়েছেন তিনি। এদিকে একটু একটু করে করোনাকে নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টা চালাচ্ছে এদেশ। রাজধানী দিল্লির সংক্রমণ মাঝে দ্রুত বৃদ্ধি পেলেও, তাতে লাগাম টানা গিয়েছে। চিন্তায় রাখছে দৈনিক মৃতের সংখ্যা।