বিয়েতে নিমন্ত্রিত অতিথিদের থেকে টাকা চাইলেন নববধূ! একটুকরো কেকের দাম ৩৬৬ টাকা

7
wedding cake
এক টুকরো কেকের দাম ৩৬৬ টাকা!

মহানগর ডেস্ক: বর্তমান প্রজন্মের বিয়েতে একটি নতুন ট্রেন্ড শুরু হয়েছে। সেটি হল বিয়েতে বর ও কনের একসঙ্গে কেক কাটার রীতি। সাধারণত এটি খ্রিষ্টান নিয়ম অনুযায়ী হয়ে থাকে। কিন্তু হিন্দু ধর্মেও এখন এই নতুন ট্রেন্ড শুরু হয়েছে। সাধারণত বিয়েতে বর ও কনে নিজেদের আনন্দেই ব্যস্ত থাকেন। নিজেদের পোশাক, সাজগোজ, আতিথেয়তা এইসব নিয়ে তাঁরা ব্যস্ত থাকেন। কিন্তু বিয়ের দিন এই দুর্মূল্যের বাজারে এক টুকরো কেকের জন্য অতিথিদের থেকে টাকা চাওয়াটা বাড়াবাড়ি বলেই মনে হতে পারে আপনার।

কিন্তু এই বাড়াবাড়ি পর্যায়ে চলে যাওয়া বিষয়টি ঘটিয়ে ফেলেছেন এক নব বধু। একজন অতিথি একটার বদলে দু টুকরো কেক খাওয়ায় তাঁকে টেক্সটের মাধ্যমে অর্থ চেয়ে পাঠালেন সদ্যবিবাহিতা কনে। সেই স্ক্রিনশটটি সোশ্যাল মিডিয়ায় ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়েছে। কিন্তু এখানেই শেষ নয়। চমক এখনও বাকি আছে। বিয়ের অনুষ্ঠানে আগে থেকেই বলা হয়েছিল, এক টুকরো কেকের দাম ৩৬৬ টাকা। সুতরাং আপনি যদি কেক খেতে চান তাহলে আপনাকে কেকের দাম দিয়ে তবেই কেক খেতে হবে। গোটা বিষয়টি শুনে আপনি হতবাক হলেও, সেই বিয়েতে উপস্থিত অতিথিরা তাই করেছিলেন।

খুব স্বাভাবিকভাবেই বিয়ের অনুষ্ঠানে আসা প্রত্যেক অতিথিরা একটুকরো কেকের জন্য ওই টাকা প্রদান করেন। কিন্তু এক ব্যক্তি আচমকা এক টুকরো কেকের অর্থ প্রদান করে দু টুকরো কেক খেয়ে নেয়। সেই ভিডিও বিয়ের পরের দিন নববধূ দেখে ফেলে সিসিটিভি ফুটেজের মাধ্যমে। আর তারপরেই চলে যায় অতিথির কাছে মেসেজ। সিসিটিভি ফুটেজের ভিডিওটি পাঠিয়ে নববধূ লিখেছেন, ‘আমরা সিসিটিভি ফুটেজ দেখে ছিলাম। আর সেখানে দেখলাম তুমি দু টুকরো কেক খেয়েছো। আমরা আগেই ঘোষণা করে দিয়েছিলাম যে প্রত্যেকে এক টুকরো কেক এর জন্য অর্থ প্রদান করতে হবে। এবং খেয়াল করলাম যে তুমি শুধুমাত্র একটি টুকরো কেকের দাম দিয়েছ। তুমি তাড়াতাড়ি ৩৬৬ টাকা পাঠাতে পারবে’।

আর এই গোটা ঘটনাটি রেডিট নামক একটি সোশ্যাল মিডিয়া প্ল্যাটফর্ম এর ভাইরাল হয়েছে। নববধূর কান্ড দেখে স্তব্ধ হয়েছে গোটা নেটদুনিয়া। প্রচুর পরিমাণে শেয়ার করা হয়েছে গোটা বিষয়টি। প্রচুর পরিমাণে কমেন্ট পড়েছে।