মারধর করে খুলে দেওয়া হল পাগড়ি, নিউ ইয়র্কে বর্ণবিদ্বেষের শিকার ২ শিখ যুবক

35

মহানগর ডেস্ক: মার্কিন মুলুকে বর্ণবিদ্বেষের শিকার দুই শিখ যুবক। মঙ্গলবার নিউ ইয়র্কের রিচমন্ড হিল এলাকায় ২ ভারতীয় বংশোদ্ভূত শিখের উপর হামলা চালানো হয়েছে বলে অভিযোগ। এমনকি এদিন ঘটনার তদন্তে একজনকে গ্রেফতারও করেছে নিউ ইয়র্ক পুলিশ।

মূলত নিউ ইয়র্কের ওই এলাকায় দুই শিখ যুবক মর্নিং ওয়াকে বেরিয়েছিলেন। তারপর তাঁদের উপর হামলা চালায় দুষ্কৃতীরা। তাঁদেরকে মারধর করে পাগড়ি খুলে দেওয়ার মত অভিযোগ এসেছে। যদিওবা এর আগে ওই একই এলাকায় এক বৃদ্ধের উপর এরকমই হামলা হয়। এই ঘটনা প্রথম নয়। মর্নিং ওয়াকে গিয়েই ওই বৃদ্ধ হামলার শিকার হন। সে ঘটনার প্রতিবাদ জানিয়ে গত শনিবার বিক্ষোভ দেখিয়েছিলেন স্থানীয় শিখ সম্প্রদায়ের মানুষজন।

কিন্তু সপ্তাহ ঘুরতে না ঘুরতেই তারপর আবার হামলা হল দুই শিখ যুবকের উপর। নিরাপত্তা বাড়ালেও, কোনও লাভ হয় নি। সেদিন ফের এই ঘটনাকে বিদ্বেষমূলক ঘটনা বলে অভিযোগ করেছেন স্থানীয় শিখ সম্প্রদায়ের নেতারা। এই বিষয়ে ইতিমধ্যে প্রশাসনের কাছে কড়া পদক্ষেপের দাবি করেছেন তাঁরা। ঘটনার নিন্দা জানিয়েছেন, নিউ ইয়র্কের অ্যাটর্নি জেনারেল লেটিটি জেমস। এমনকি এই ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করেছেন নিউ ইয়র্ক স্টেট অ্যাসেম্বলির শিখ সদস্য জেনিফার রাজকুমারও।

এদিন তিনি অভিযোগ করেছেন, “গত কয়েক বছরে আমেরিকায় শিখদের প্রতি অত্যাচার বেড়ে গিয়েছে। পরপর ঘটে যাওয়া দু’টি দুর্ঘটনাকেই বিদ্বেষমূলক হিসাবে তদন্ত করতে হবে এবং দোষীদের সর্বোচ্চ শাস্তির ব্যবস্থা করতে হবে”।