Astrology: শুক্র গ্রহের স্থান পরিবর্তনে ৪ রাশির জাতকের সুখ সমৃদ্ধি বৃদ্ধি, দেখে নিন তারা কারা

65

মহানগর ডেস্ক: ৭ অগাষ্ট থেকে শুরু হবে শুক্র গ্রহের খেল। তার স্থান পরিবর্তনের কারণে ৪ রাশির জীবনে বয়ে যাবে সুখ সমৃদ্ধির বন্যা। ভারতীয় জ্যোতি শাস্ত্র অনুযায়ী গ্রহ শুক্রকে শিল্প, সৌন্দর্য, আকর্ষণ, প্রেম, উপভোগের কারক হিসাবে মানা হয়। তার স্থান বদলে এই পরিবর্তন আসতে চলেছে। আগামী রবিবার সকাল ৮.৪০ মিনিটে বুধ গ্রহ থেকে কর্কট রাশিতে শুক্র গ্রহের সল্পস্থায়ী পরিবর্তন ঘটতে চলেছে। ৩১ অগাস্ট পর্যন্ত শুক্র কর্কট রাশিতে অবস্থান করবে যার ফলে এই চার রাশির ওপর প্রভাব দেখা যাবে।

তবে শাস্ত্র মতে, শুক্রের উপর শনি ও বৃহস্পতির দৃষ্টি পড়বে। শনির দৃষ্টি কারণে কেউ নারীদের সম্পর্কে নেতিবাচক তথ্য পেতে পারেন। তবে আর্থিক ব্যবস্থায় ইতিবাচক ফল আসবে। অন্যদিকে আন্তর্জাতিক স্তরে ভারতের প্রতিপত্তি বাড়বে। এমনকি ভারতীয় মনুষ্য সম্পদ যেমন শিল্পী, সাহিত্যিক, খেলোয়াড়দের জন্য সময়টি ইতিবাচক। তীব্র সেটা কেবল চার রাশির ক্ষেত্রে।

সেই চার রাশি কোনগুলো? চলুন দেখে নেওয়া যাক

বৃষ রাশি:- বৃষ রাশির জাতিকাদের তৃতীয় ঘরে শুক্র গমন করবে ফলে শক্তি বৃদ্ধি হবে। সামাজিক প্রতিপত্তি বৃদ্ধি করবে। দাম্পত্য জীবনে সুখ আসবে। ভাই-বোনের সহযোগিতা পাবেন। শিল্পের সাথে যুক্ত ব্যক্তিরা সাফল্য পাবেন। মূল রাশিফল অনুসারে শুক্রের রত্ন পরিধান করলে উপকার হবে।

মেষ রাশি:- এই রাশির জাতক জাতিকাদের ক্ষেত্রে শুক্র সুখ অধিপতি ও সপ্তম ঘরের অধিপতি হওয়ায় দাম্পত্য জীবন ও প্রেমের সম্পর্কে মধুরতা থাকবে। শেয়ারে ইতিবাচক পরিবর্তন আসবে। এই সময়টি ব্যবসায়ীদের ক্ষেত্রে আদর্শ সময়।

কর্কট রাশি:- কর্কট রাশিতে শুক্র সুখ ও লাভের কারক হওয়ায় আরোহীতে গমন করবে। ফলে কারও ব্যক্তিত্বে ইতিবাচক পরিবর্তন করবে। অর্থনৈতিক অগ্রগতি হবে। মায়ের সুখ বৃদ্ধি। ব্যবসায়িক কাজে ইতিবাচক পরিবর্তন সহ দাম্পত্য জীবনে সুখ আসবে।

মিথুন:- শেষে রয়েছে মিথুন রাশির জাতক জাতিকারা। তাদের ক্ষেত্রে শুক্র দ্বাদশ ও পঞ্চম ঘরের কারক। তাই দ্বিতীয় গৃহে অর্থাৎ অর্থ গৃহে প্রবেশ করতে চলছে শুক্র। কার্যত আর্থিক বিষয়ক বা জমিজমা সংক্রান্ত বিষয়ে অর্থলাভ হতে পারে। সেলসের সাথে যুক্ত ব্যক্তিদের জন্য এটি আদর্শ সময় হতে চলেছে। বিবাহিত জীবনে অগ্রগতি ও নতুন উদ্যমের যোগাযোগ হবে। সন্তানের দিক থেকেও সুখবর আসতে পারে। কিন্তু একটি নেতিবাচক দিক আছে, হঠাৎ করেই কোনও বড়সড় খরচ হয়ে যেতে পারে।