Home Bengal টার্গেট পূরণ না হলে সরতে হবে! ডায়মন্ড হারবারের দলীয় নেতাদের সতর্ক করলেন অভিষেক

টার্গেট পূরণ না হলে সরতে হবে! ডায়মন্ড হারবারের দলীয় নেতাদের সতর্ক করলেন অভিষেক

by Sibapriya Dasgupta
47 views

মহানগর ডেস্ক : লোকসভা ভোটে ডায়মন্ড হারবারে জয়ের “টার্গেট” বেঁধে দিলেন দলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক  অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। আর সেই “টার্গেট” পূরণ না হলে কাউন্সিলর এবং ওয়ার্ড প্রেসিডেন্টদের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তাঁদের সরিয়েও দেওয়া হবে পদ থেকে। লোকসভা ভোটের রুদ্ধদ্বার প্রস্তুতি বৈঠকে সে কথা স্পষ্ট ভাষায় জানিয়ে দিলেন তৃণমূলের সেনাপতি অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রসঙ্গত, দিন কয়েক আগে বসিরহাটের সভাতেও তাঁর মুখে “টার্গেটে”র কথা শোনা গিয়েছিল।

বুধবার বিষ্ণুপুরের আমতলায় ডায়মন্ড হারবার বিধানসভার কার্যকর্তাদের নিয়ে প্রথম বৈঠক করেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় । বৈঠকে সাংসদ মনে করিয়ে দেন, এবার তাঁর ভোটে জেতার ব্যবধান অন্তত চার লক্ষ হতে হবে। দলীয় কর্মীদের তাঁর নির্দেশ, এতো উন্নয়ন ও পরিষেবা দেওয়ার পরও ২০১৯-লোকসভা এবং ২০২১-এক বিধানসভা ভোটে ডায়মন্ড হারবার বিধানসভার যে বুথগুলিতে তৃণমূল লিড পায়নি সেই বুথগুলিতে আরও জোর দিতে হবে। কেন সেখানে তৃণমূল হারল তা মানুষের সঙ্গে কথা বলে জানতে হবে। মানুষের সমস্যার সমাধান করতে হবে। রাজ্য সরকারের উন্নয়নমূলক প্রকল্প এবং সাংসদ নিজে আমজনতার জন্য যে সমস্ত কাজ করেছেন সেগুলো মানুষকে বার বার করে বলতে হবে, পরামর্শ অভিষেকের।

ডায়মন্ড হারবার পুরসভার ৪,৬,৯ ও ১৬- এই চারটি ওয়ার্ডের গত নির্বাচনের কেন ফল খারাপ হল, সে বিষয়ে প্রশ্ন তুলে অভিষেক বলেন এই সমস্ত ওয়ার্ডগুলিতে আরও বেশি করে নেতাকর্মীদের মানুষের দরজায়-দরজায় যেতে হবে। মানুষের কথা শুনতে হবে। এই সমস্ত বুথ ও ওয়ার্ডগুলোতে কেন তৃণমূল দুর্বল, সে ব্যাপারে মানুষের কাছে জানতে হবে। এর পরই বেশ কড়া ভাষায় অভিষেক বলেন, কোনও ওয়ার্ডে লোকসভা নির্বাচনে তৃণমূল লিড না পেলে তার দায়িত্ব নিতে হবে ওই ওয়ার্ডের কাউন্সিলর এবং প্রেসিডেন্টদের। তাঁদের বিরুদ্ধে সাংগঠনিকভাবে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এমনকী, তাঁদেরকে পদ থেকে সরেও যেতে হবে।

অভিষেক মনে করিয়ে দেন, জনগণই তৃণমূলের শক্তি। তাই বার বার মানুষের কাছে যেতে হবে। মানুষের চাহিদা কী, তা তৃণমূলের নেতাকর্মীদের পরিষ্কারভাবে জানতে হবে। মানুষের দাবিগুলি তাঁকে জানানোর কথা অভিষেক এদিন স্মরণ করিয়ে দেন। বলেন, আগামী দুমাস রাস্তায় থেকে মানুষের জন্য কাজ করতে হবে। নেতাকর্মীদের অভিষেকের পরামর্শ, এলাকায় বাড়ি-বাড়ি গিয়ে বোঝাতে হবে যে কেন্দ্রীয় সরকার রাজ্যের প্রাপ্য টাকা আটকে রেখেছে। এই বিষয়টি ভালোভাবে প্রচারে আনতে হবে।

You may also like

Mahanagar bengali news

Copyright (C) Mahanagar24X7 2024 All Rights Reserved