Home Bengal দরজা খুলে তাজ্জব পুলিশ, উদ্ধার বৃদ্ধার পচাগলা দেহ 

দরজা খুলে তাজ্জব পুলিশ, উদ্ধার বৃদ্ধার পচাগলা দেহ 

by Mahanagar Desk
116 views

মহানগর ডেস্ক:   ইছাপুরের বিধান পল্লী এলাকার একটি বন্ধ ঘর থেকে কৃষ্ণা ঘোষ নামে ৬৫ বছরের এক বৃদ্ধার পচাগলা দেহ উদ্ধার করল নোয়াপাড়া থানার পুলিস। কৃষ্ণা ঘোষের দাদা বাবলু ঘোষ সেই দেহ বেশ কয়েকদিন ধরে আগলে বসেছিলেন। পুলিস বাবলুকে উদ্ধার করে চিকিতসার জন্য বি এন বসু হাসপাতালে পাঠিয়েছে।

পাশাপাশি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে কীভাবে ও কবে ওই মহিলার মৃত্যু হয়েছে। ভাই বোন দুজনেই বয়স্ক। একই বাড়িতে থাকতেন। সেই বাড়ি থেকে কটু গন্ধ পাচ্ছিলেন প্রতিবেশীরা। তারা যখন ওই বাড়িতে খোঁজ খবর করতে যান তখন তাঁদের বাধা দেন বাড়ির বৃদ্ধ বাবলু ঘোষ। এরপরই তারা খবর দেন নোয়াপাড়া থানায়। ঘর খুলে হতবাক পুলিস। গত ১০ দিন ধরে ওই বাড়ি থেকে একটা গন্ধ আসছিল। প্রতিবেশী সৌমি মুখোপাধ্যায় বলেন,” আমরা খুব বেশি গুরুত্ব দিইনি। শেষপর্যন্ত জানতে পারলাম কৃষ্ণা ঘোষ মারা গিয়েছেন। ওরা কারও সঙ্গে মিশতেন না। একাই থাকত তাঁরা। পুলিস এসে দেহ উদ্ধার করে নিয়ে গেল। ওদের এক দিদি টাকা পাঠাতেন। তাতেই ওদের সংসার চলত।”

প্রতিবেশীরা জানিয়েছেন মানসিক সমস্যার কারণে অফিসে যেতেন না বাবলুদা। অফিস থেকে লোক এসে ওকে নিয়ে যেতে পারেনি। কাউকে বাড়িতে ঢুকতে দিতেন না। এলাকা থেকে আমাকে একজন ফোন করে জানান যে ওই বাড়ি থেকে গন্ধ আসছে। পুলিস এসে দেহ উদ্ধার করে নিয়ে যায়। পাড়ার লোকজন ওদের চিকিতসার চেষ্টা করেছিল। কিন্তু ওরা কোনও সহযোগিতা করেননি। স্থানীয় পুরসভার কাউন্সিলার প্রদীপ বসু বলেন, মনে হচ্ছে কয়েকদিন আগেই ওই মহিলার মৃত্যু হয়েছে। বাবল ঘোষ ও কৃষ্ণা ঘোষ ওই বাড়িতে থাকতেন। বাবলদা সম্ভবত রাজ্যে সরকারের ওয়ালেফেয়ার দফতরে চাকরি করতেন। ওরা দুজনই মানসিক ভারসাম্যহীন।

You may also like

Mahanagar bengali news

Copyright (C) Mahanagar24X7 2024 All Rights Reserved